০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, বুধবার, ০২:৩৮:৩৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
হজে যেতে ৬ লাখ ৮৩ হাজার ১৮ টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার ভাষা শহীদদের প্রতি সম্মান জানিয়ে বাংলা ভাষায় রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট চাঁপাইনবাবগঞ্জে ভোটকেন্দ্রের ভেতর থেকে ককটেল উদ্ধার হিরো আলমকে গাড়ি উপহার দিতে চান এক শিক্ষক, তবে হিরো আলমের দাবি তিনি গড়িমসি করছেন আঙুলের ছাপ না মেলায় ভোট না দিয়েই ফিরে গেলেন বৃদ্ধা কল্পনা রানী শঙ্কার মধ্যেই বগুড়া-৪ ও ৬ আসনের উপনির্বাচনের ভোট গ্রহণ চলছে ৬টি সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনের ভোট গ্রহণ চলছে স্ত্রী ও দুই সন্তানকে হত্যা, বিটিসিএল কর্মকর্তার মৃত্যুদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা বাগেরহাটের ইপিজেডের কারখানায় লাগা আগুন এখনো নিয়ন্ত্রণে আসেনি দেশে ফিরছেন সৌদি আরবে নির্যাতনের শিকার রোজিনা
রক্তে শর্করা নিয়ন্ত্রণে রাখতে যা করবেন
সাইফুল ইসলাম মুন্না
  • আপডেট করা হয়েছে : ২০২৩-০১-০৪
রক্তে শর্করা নিয়ন্ত্রণে রাখতে যা করবেন

বিভিন্ন অনুষ্ঠানে বা উৎসবে ডায়াবেটিস রোগীদের ব্যাপক অসুবিধায় পড়তে হয়। কেননা এ সময় নিজেকে হাজারো সংযুক্ত রাখার চেষ্টা করার পরও দেখা যায় অনেক সময় বন্ধু বা পরিবারের সাথে তাল মিলিয়ে শর্করাজাতীয় খাবার খেয়ে ফেলেছেন আপনি। 

এর ফলে রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে যায় এবং আপনার স্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকি তৈরি করে। বিশেষজ্ঞদের মতে শুধুমাত্র ওষুধ খেয়ে রক্তে ডায়াবেটিসের মাত্রা ঠিক রাখার চেষ্টা করলে তা পুরোপুরি ভুল হবে। নিজের শরীর, খাওয়াদাওয়া, শরীরচর্চার বিষয়েও সচেতন হতে হবে।  

আরও যেসব বিষয়ে সচেতন হওয়া প্রয়োজন 

মনে করুন হঠাৎ করে কোনো উৎসবে আপনার খাওয়া দাওয়া হয়েছে পুরোপুরি নিয়মের বাইরে এবং যার ফলে আপনার শরীরে শর্করার পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে। এখন যদি আগের মতোই ওষুধ খেতে থাকেন তবে হয়তো ভালো ফল নাও পেতে পারেন। এর জন্য সবচেয়ে ভালো উপায় হল প্রথমে রক্ত পরীক্ষা করে পরবর্তীতে  চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলে প্রয়োজন অনুযায়ী ওষুধ গ্রহণ করা।

স্বাভাবিকভাবে আপনার শরীরের যদি পানির অভাব থাকে তবে শরীরের নানা রকম রোগ বাসা বাঁধবে।  তেমনি ভাবে শরীরে রক্তের শর্করার পরিমাণ ঠিক রাখার জন্য প্রচুর পরিমাণ পানি খাওয়া উত্তম তো জরুরী। চিকিৎসকদের মতে ডায়াবেটিস রোগীদের শরীরের রক্তের শর্করার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ রাখার জন্য প্রতিদিন নিয়ম করে অন্তত ৬ থেকে ৭ ক্লাস পানি খাওয়া উচিত। কিন্তু দীর্ঘ দিন ধরে রক্তে শর্করা থাকার ফলে যদি কিডনির সমস্যা দেখা দেয়, সে ক্ষেত্রে অবশ্যই পানি মেপে খেতে হবে। 

শাক-সব্জি, দানাশস্য সব কিছুতেই প্রাকৃতিক চিনি থাকে। সুতরাং সারা দিনে আপনি কী খাবেন বা কতটা খাবেন, তার ওপর নির্ভর করবে রক্তের শর্করার মাত্রা। এক্ষেত্রে কিভাবে ভারসাম্য বজায় রেখে খাবার খাবেন, তার পরিকল্পনা আগে থেকে করে রাখাই ভালো। শরীরচর্চার বিকল্প নেই। সেটিও যদি একেবারেই করতে না পারেন প্রতি দিন অন্তত পক্ষে ১০ মিনিট হাঁটাহাটি বন্ধ করা যাবে না।  

প্রতিদিন আপনি আপনার খাবারের তালিকায় যেসব খাবার রাখছেন তার মধ্যে অবশ্যই কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবারের পরিমাণ কমিয়ে ফেলার চেষ্টা করুন এবং যদি আপনার বাড়ির খাবার খাওয়ার অভ্যাস থাকে তবে তা পরিবর্তন করার তেমন কোনো প্রয়োজন নেই। এছাড়াও রক্তে শর্করার পরিমাণ মাত্রাতিরিক্ত বৃদ্ধি পায় তবে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।  

শেয়ার করুন