০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, বুধবার, ০৩:২৯:২৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বিদ্যুৎ খাতে সরকারের লুটপাটের মাশুল দিচ্ছে জনগণ, ফখরুল ফের শীত বাড়তে পারে, জানালো আবহাওয়া অধিদপ্তর সাগরে নিম্নচাপ সৃষ্টি, তাপমাত্রা কমতে পারে ১-৩ ডিগ্রি হজে যেতে ৬ লাখ ৮৩ হাজার ১৮ টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার ভাষা শহীদদের প্রতি সম্মান জানিয়ে বাংলা ভাষায় রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট চাঁপাইনবাবগঞ্জে ভোটকেন্দ্রের ভেতর থেকে ককটেল উদ্ধার হিরো আলমকে গাড়ি উপহার দিতে চান এক শিক্ষক, তবে হিরো আলমের দাবি তিনি গড়িমসি করছেন আঙুলের ছাপ না মেলায় ভোট না দিয়েই ফিরে গেলেন বৃদ্ধা কল্পনা রানী শঙ্কার মধ্যেই বগুড়া-৪ ও ৬ আসনের উপনির্বাচনের ভোট গ্রহণ চলছে ৬টি সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনের ভোট গ্রহণ চলছে
নড়াইলে হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার
ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট করা হয়েছে : ২০২৩-০১-২৪
নড়াইলে হত্যা মামলার আসামী গ্রেফতার

নড়াইলের কালডাংগা গ্রামের ইয়াছিন মোল্যা (২২) নামের এক রাজমিস্ত্রিকে হত্যার ঘটনা ঘটনায় নিখোঁজ ইয়াছিনের মৃতদেহ উদ্ধারের মাত্র ১২ ঘণ্টার মধ্যে জড়িত মূল আসামী ও তার প্রধান সহযোগিকে গ্রেপ্তার করেছে নড়াইল জেলা পুলিশ।

এদিকে ঘটনায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত একটি রক্তমাখা চাকু ও মৃতের ব্যবহৃত একটি পালসার মোটরসাইকেল উদ্ধার করেছে বলে জানা যায়।

গ্রেপ্তারকৃত আসামীরা হলো নড়াইল সদর উপজেলার চাঁদপুর গ্রামের কুদ্দুস মোল্যার ছেলে হোসাইন মোল্যা ওরফে হামজা (২০)  এবং মফিজ খাঁনের ছেলে হাসিব খাঁন (২০)। 

গত ১৬/০১/২০২৩ তারিখ রাতে মৃত ইয়াছিন বন্ধুদের সাথে নড়াইল সদর থানাধীন হিজলডাঙ্গা গ্রামে মেলা দেখতে যাওয়ার উদ্দেশ্যে নিজের মোটরসাইকেল ও মোবাইল ফোনসহ সদর উপজেলার ভওয়াখালি গ্রাম তার বর্তমান ভাড়া বাড়ি থেকে বের হয়।ঐ রাতেই ইয়াছিন বাড়িতে ফিরে না আসায় তার বোন (১৮ জানুয়ারি) নড়াইল সদর থানায় একটি নিখোঁজ জায়েরী করে। নিখোঁজ ডায়েরীর প্রেক্ষিতে (২২ জানুয়ারি) দুপুরে ইয়াছিন মোল্যার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

এদিকে মৃতদেহ উদ্ধারের সংবাদ পাওয়ার পর নড়াইল জেলার পুলিশ সুপার সাদিরা খাতুন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে এবং ঘটনায় জড়িত প্রকৃত আসামীদের গ্রেফতারের জন্য প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা প্রদান করেন।

এরপর পুলিশ সুপারের নির্দেশনায় নড়াইল জেলা পুলিশ অভিযান চালিয়ে হত্যাকাণ্ডে জড়িত মূল আসামীদ্বয়কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

জানা গেছে, পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামীরা ইয়াছিনের হত্যাকাণ্ডের সাথে তাদের জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে।


শেয়ার করুন